বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ০৫:০৮ অপরাহ্ন

অন্য দেশের সিদ্ধান্তে আফগানদের আশ্রয় দেবে না তুরস্ক

নিউজ ডেস্ক :: তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রেচেপ তায়েপ এরদোয়ান বলেছেন, তার দেশ আফগানিস্তানে চলমান সংকট নিয়ে কূটনৈতিক প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। আর এ লক্ষ্যে আঞ্চলিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ অব্যাহত রাখবে তার দেশ। খবর ডেইল সাবাহ’র।

তুর্কি প্রেসিডেন্ট এক টুইট বার্তায় বলেন, আফগানিস্তানের উন্নয়ন এবং অনিয়মিত অভিবাসন নিয়ে ব্যাপক কূটনৈতিক প্রচেষ্টা চালাচ্ছে তুরস্ক। আমরা আঞ্চলিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে, আমাদের দেশকে অভিবাসনের চাপ থেকে রক্ষা করতে এবং আমাদের জনগণের শান্তির জন্য সব ধরনের পদক্ষেপ অব্যাহত রাখবো।

এই ইস্যুতে বিশ্ব নেতাদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট। এই তালিকায় জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মার্কেল, ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নের অন্যান্য কর্মকর্তাও রয়েছে। আঙ্কারা জানিয়েছে, অন্য কোনও দেশের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী অভিবাসনের ভার বহন করবে না তারা।

আফগানিস্তানে সাম্প্রতিক ঘটনাগুলোর ব্যাপারে তুর্কি সরকার একটি বাস্তববাদী পন্থা অবলম্বন করেছে। আফগানিস্তানে নতুন বাস্তবতার উদ্ভব হয়েছে উল্লেখ করে আঙ্কারা বলছে যে, সব পক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করে সেই অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

এদিকে তালেবান কর্মকর্তাদের মধ্যপন্থী বক্তব্যকে স্বাগত জানিয়েছেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান। এসময় তিনি জানান, শান্তি ও স্থিতিশীলতা নিশ্চিত করতে তুরস্ক সব পক্ষের সঙ্গে সহযোগিতা করতে প্রস্তুত রয়েছে।

এরদোয়ান বলেন, আফগানিস্তানে তুরস্কের সামরিক উপস্থিতি আন্তর্জাতিক ক্ষেত্রে নতুন আফগান প্রশাসনের হাতকে শক্তিশালী করবে। তুর্কি প্রেসিডেন্ট আরও বলেন, তুর্কি সৈন্যরা কাবুল বিমানবন্দরের নিরাপত্তা দেবে এবং নিরাপদ এবং শান্তিপূর্ণ উপায়ে উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রাখা নিশ্চিত করবে।

তুরস্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেভলুত চাভুসোগলুও বলেছেন, আফগানিস্তানে নতুন সরকারের স্বীকৃতির বিষয়ে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের সঙ্গে সমন্বয় করে কাজ করবে তুরস্ক।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি