শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:২৩ পূর্বাহ্ন

সীমান্তে বাংলাদেশি হত্যার ঘটনায় বিএনপির নিন্দা

নিউজ ডেস্ক :: সরকারের নতজানু পররাষ্ট্রনীতির কারণেই সীমান্ত হত্যাকাণ্ড বন্ধ হচ্ছে না এবং এ বিষয়ে কার্যকরী ব্যবস্থা নেওয়া সম্ভব হচ্ছে না বলে অভিযোগ করেছে বিএনপি।

একইসঙ্গে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) সদস্যদের গুলিতে বাংলাদেশি নাগরিক হত্যার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে দলটি।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির এক ভার্চুয়াল সভায় গতকাল শনিবার এ নিন্দা জানানো হয় বলে রোববার (১২ সেপ্টেম্বর) দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, সভায় গত ৪ সেপ্টেম্বর কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলার দাঁতভাঙ্গা সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর সদস্যরা গুলি করে শাহিবর রহমান নামে এক বাংলাদেশি নাগরিককে হত্যা করে। সভ্য পৃথিবীর কোনও দেশের সীমান্তে এভাবে মানুষকে গুলি করে হত্যা করা হয় না। এটা আন্তর্জাতিক আইনবিরোধী। সরকারের নতজানু পররাষ্ট্রনীতির কারণেই এসব সীমান্ত হত্যার বিষয়ে কখনো কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণ করা সম্ভব হয়নি।

সভায় এ ধরনের ন্যক্কারজনক হত্যাকাণ্ড বন্ধে ভারতীয় কর্তৃপক্ষকে বাধ্য করতে সরকারকে কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণের আহ্বান জানানো হয়।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সভা মনে করে, ‘উপহারের ঘর যারা ভেঙেছে, তাদের তালিকা হাতে রয়েছে’- প্রধানমন্ত্রীর এ মন্তব্য আশ্রয়ন-২ প্রকল্পের অধীনে ঘর নির্মাণে দুর্নীতিবাজ আওয়ামী লীগ দলীয় ঠিকাদার ও দলবাজ আমলাদের দুর্নীতির পক্ষে সাফাই গাওয়ার শামিল। সভায় বলা হয়, প্রকৃতপক্ষে দুর্নীতিকে এখন রাষ্ট্রীয়ভাবে সমর্থন করা হচ্ছে। রাষ্ট্রের সর্বক্ষেত্রে আওয়ামী সরকার দুর্নীতিকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিচ্ছে। সভায় প্রধানমন্ত্রীর এ মন্তব্যের তীব্র সমালোচনা করা হয়।

এছাড়াও চট্টগ্রাম পুরাতন সার্কিট হাউজে শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান বীর উত্তমের নামে থাকা জাদুঘর সরিয়ে ফেলা হবে বলে তথ্য ও সম্প্রচার প্রতিমন্ত্রী যে উক্তি করেছেন, সভায় তারও তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়।

সম্প্রতি ছাত্রদলের সাবেক সভাপতিসহ দলের বহুসংখ্যক নেতা-কর্মী এবং অন্যান্য বিরোধী দলের নেতাদের গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা জানিয়ে গ্রেফতারদের অবিলম্বে মুক্তি ও সব মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয় সভায়।

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের সভাপতিত্বে সভায় উপস্থিত ছিলেন, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, ব্যরিস্টার জমির উদ্দিন সরকার, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ড. আব্দুল মঈন খান, নজরুল ইসলাম খান, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, বেগম সেলিমা রহমান ও ইকবাল হাসান মাহমুদ টুকু প্রমুখ।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি