শনিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২৩, ০১:৩৮ পূর্বাহ্ন

হরতালে বিদেশগামীদের ভোগান্তি

ষাটোর্ধ্ব আজগর আলী বড় ছেলেকে নিয়ে ঢাকায় এসেছেন সিলেট থেকে। পরিবারের হাল ধরতে ছেলেকে কাতার পাঠাচ্ছেন বাবা। মেডিকেল করতে বাবা-ছেলের ঢাকায় আসা। হরতালের কারণে মৌলভীবাজার থেকে ঢাকায় আসতে বেশ বিড়ম্বনা পড়তে হয় তাদের।

রাজধানীর বাংলামোটরে রুপায়ন ট্রেড সেন্টারের মূল ফটকের সামনে ঢাকা পোস্টের সঙ্গে কথা হয় আজগরের। তিনি বলেন, ছেলের মেডিকেলের তারিখ পড়েছে। হঠাৎ করে শুনি হরতাল। একটা পেরেশানির মধ্যে পড়ে যাই। ঢাকায় না এসেতো উপায় নাই। রাত ২টায় সিলেট শহর থেকে রওনা হইছি। সকাল ৬টা থেকে এখানে বসে আছি, এখনও সিরিয়াল আসেনি। আবার বাড়ি ফিরব কিভাবে সেটা নিয়েও টেনশন হচ্ছে।

ভৈরবের বাসিন্দা মোহাম্মদ আলাউদ্দিন সৌদি আরব যাবেন। পল্টনের একটি রিক্রুটিং এজেন্সির কাছে তার পাসপোর্ট জমা রয়েছে। মেডিকেলের তারিখ পড়েছে। সেজন্য ভোর পাঁচটা থেকে পাসপোর্টের জন্য পল্টন এসে বসে আছেন আলাউদ্দিন। তিনি বলেন, ভোর রাত ৩টায় ভৈরব থেকে রওনা হয়েছি। সেই সকাল থেকে বসে আছি। ১১টায় মেডিকেল হবে। পাসপোর্ট এজেন্সির কাছে জমা। সকাল ৮টার মধ্যে এখানে থাকতে বলছে; কিন্তু ফোন দিচ্ছি, তারা কেটে দেয়।

রোববার সারা দেশে সকাল–সন্ধ্যা হরতাল ডেকেছে বিএনপি। এতে করে আজগর-আউদ্দিনের মতো অনেক বিদেশগামী বা তাদের পরিবারকে নানা ঝামেলায় পড়তে হয়েছে।

রাজধানীর পুরান পল্টন, প্রেসক্লাব, মৎস্য ভবন, শাহবাগ ও বাংলামোটর এলাকার মূল সড়কে সকাল সাতটা থেকে সাড়ে ৯টা পর্যন্ত গণপরিবহনের সংখ্যা কম দেখা গেছে।

পুরান পল্টন একটি বেসরকারি অফিসে কাজ করেন মোহাম্মদ রতন। আবদুল্লাপুর থেকে পল্টনে আসতে তাকে গুনতে হয়েছে পাঁচশ টাকা। রতন, বাসা থেকে অন্য দিনের তুলনায় একটু আগে বের হই। রাস্তায় বাস ছিল কিছু। কিন্তু ভয়ে বাসে উঠতে সাহস পাচ্ছিলাম না, সেজন্য সিএনজি করে আসলাম। কিন্তু যে ভাড়া নিল, যাবার সময়ও সিএনজিতে গেলে আজকের বেতন শেষ।

শাহবাগ থেকে কাওরান বাজার যাবেন সুমাইয়া আক্তার। রিকশা চালকরা ভাড়া হাঁকছেন ১০০টাকা। সুমাইয়া বলেন, সবাই সুযোগ কাজে লাগাবে। এতটুকু রাস্তা ১০০টাকায় ভাড়া চায়, চিন্তা করেন!

সরেজমিন করা এলাকাগুলোর মূল ফটকগুলোতে পুলিশের উপস্থিতি দেখা গেছে। নাম প্রকাশ না করার অনুরোধ করে এক পুশিল সদস্য বলেন, হরতালের নামে কেউ অরাজকতার চেষ্টা করলে পুলিশ হার্ড লাইনে যাবে। হেড অফিস থেকে এমন বার্তা দেওয়া হয়েছে।

বাংলামোটরে দায়িত্বরত সার্জেন্ট (ট্রাফিক) বুলবুল আহমেদ ঢাকা পোস্টকে বলেন, সকাল থেকে এ সড়কে বাস চলাচল স্বাভাবিক আছে। তবে অন্য দিন যেমন থাকে তার চেয়ে কিছুটা কম আছে। এখন গাড়ির আনাগোনা সকালের চেয়ে অনেক বাড়ছে।

শনিবার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির মহাসমাবেশে পুলিশের হামলার প্রতিবাদে বিএনপি এই হরতাল ডেকেছে। গণতন্ত্র মঞ্চ, গণ অধিকার পরিষদসহ যুগপৎ আন্দোলনে থাকা দলগুলো বিএনপির হরতালে সমর্থন দিয়েছে। এদিকে জামায়াতে ইসলামীও আজ সারা দেশে সকাল–সন্ধ্যা হরতাল ডেকেছে।

প্রসঙ্গত, গতকাল ঢাকায় মহাসমাবেশ করেছে বিএনপি। এদিন পুলিশি বাধার মুখে বিএনপির নয়াপল্টনের সমাবেশ পণ্ড হয়ে যায়। পরে নয়াপল্টন এবং আশপাশের অন্যান্য স্থানে বিএনপি-পুলিশ-আওয়ামী লীগ সংঘর্ষ হয়।


© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগিতায়: