মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২২, ০২:০৭ অপরাহ্ন

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে বিয়ের অনুষ্ঠানে হামলায় আহত নারীর মৃত্যু

নোয়াখালী প্রতিনিধি : নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে বিয়ের অনুষ্ঠানে মেয়েদের ছবি তুলতে বাধা দেয়ার হামলা চালিয়ে ১০ জনকে কুপিয়ে জখম করার ঘটনায় গুরুতর আহত নুর নাহার (৬০) শনিবার রাতে ঢাকার একটি হাসপাতালে মারা গেছে।

এ ঘটনায় আহত অবস্থায় ৪ জন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। নিহত নুর নাহার ওই উপজেলার হীরাপুর গ্রামের মোস্তফা চেয়ারম্যানের বাড়ীর নুরুল হকের স্ত্রী।

নিহতের পরিবারের তথ্যমতে পুলিশ জানায়, গত বৃহস্পতিবার হীরাপুর গ্রামের মোস্তফা চেয়ারম্যানের বাড়ির আবুল কালামের বিয়ের অনুষ্ঠানে কনের গোসলের ছবিসহ মেয়েদের ছবি তুলতে চায় একই বাড়ীর মোশারেফ নামে এক যুবক। এতে বাধা দেয় আবুল কালামের ছেলে মিলন সহ অন্যান্যরা। বর পক্ষ কনে নিয়ে চলে যাওয়ার পর রাতে এ নিয়ে মোশারেফের সাথে বাকবিতন্ডা হয়। একপর্যায়ে মোশারেফ ১০/১২ জন বহিরাগত সন্ত্রাসী নিয়ে এসে কালামের ছেলে মাহফুজুর রহমান (২৬), নুর নাহার(৬০), আবুল কালাম(৪৯), কুলসুম আক্তার (১৯) সহ অন্তত ১০ জনকে কুপিয়ে জখম করে। এদের মধ্যে মাহফুজুর রহমান ও নুর নাহার কে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি কারা হয়।

পরে নুর নাহারের অবস্থার অবনতি ঘটলে তাকে মূমর্ষ অবস্থায় ঢাকায় প্রেরণ করা হয়। শনিবার রাতে তিনি ঢাকার একটি হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। এছাড়া আবুল কালাম ও কুলসুম আক্তারকে সোনাইমুড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়। অন্য আহতদের স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেয়া হয়।

সোনাইমুড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গিয়াস উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ আসামীদের গ্রেফতারের অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি