রবিবার, ০৭ মার্চ ২০২১, ০৮:৪১ পূর্বাহ্ন

কালিয়াকৈরে দুই দিনে তিনটি ধর্ষণ : আটক-২

কালিয়াকৈর প্রতিনিধি : গাজীপুরের কালিয়াকৈরে গত দুই দিনে তিনটি ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। কালিয়াকৈর উপজেলার মাটিকাটা,কুতুবদিয়া ও কালিয়াকৈর বাজার এলাকায় ধর্ষণের ঘটনায় পৃথক তিনটি মামলা দায়ের হয়েছে কালিয়াকৈর থানায় । এ ঘটনায় ২ জন কে আটক করেছে থানা পুলিশ।

পুলিশ ও ধর্ষিতার পরিবার সূত্রে জানা গেছে , সোমবার আনুমানিক রাত ২টার দিকে কালিয়াকৈর বাজারের জসিম উদ্দিনের বাসার ভাড়াটিয়া আলমাছ মিয়ার মেয়ে ৬ষ্ঠ শ্রেনীর ছাত্রী প্রকৃতির ডাকে সারা দেয়ার জন্য বাসার বাইরে আসলে মেয়ের অজান্তে রুমের ভিতর লুকিয়ে থাকে একই উপজেলার কুতুবদিয়া গ্রামের মৃত- রহম উদ্দিনের লম্পট ছেলে মিজান(২২)। পরে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়।

মেয়ের বাবার অভিযোগ দীর্ঘদিন যাবত তার মেয়েকে বিভিন্ন ধরনের কু-প্রস্তাব দিয়ে উত্যক্ত করে আসছিল মিজান। তার প্রস্তাবে রাজী না হওয়ায় তার মেয়েকে ধর্ষণ করে।

একই রাতে উপজেলার মাটিকাটা এলাকার দেলোয়ারের বাসার ভাড়াটিয়া এক মেয়েকে পাশের বাড়ীর ছানোয়ার হোসেনের ছেলে কাইয়ুম (২৪) টিনের দরজা কৌশলে খুলে রুমের ভিতর প্রবেশ করে ঘুমন্ত অবস্থায় মেয়েকে জড়িয়ে ধরে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। ধর্ষণ শেষে ঘটনা কাউকে না জানানোর জন্য তাকে খুন করার হুমকি দিয়ে রুম থেকে চলে যায় কাইযুম। এ ঘটনায় মেয়েটির বাবা সোলেমান কবির কালিয়াকৈর থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

অপর দিকে রবিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপজেলার মৌচাক নবুয়াবাগ এলাকায় সেলিম রেজার বাসার ভাড়াটিয়া গোপাল চন্দ্র কন্ডু একই এলাকার সাদ্দাম হোসেনের ছেলে (৭)কে তার নিজ ঘরে ডেকে নিয়ে ঘরের দরজা বন্ধ করে জোরপূর্বক পায়ুপথ দিয়ে ধর্ষণ করে। ধর্ষক গোপাল চন্দ্র কন্ডু সিরাজগঞ্জ জেলার বেলকুচি থানার চালাদক্ষিন গ্রামের হরিদাস কন্ডুর ছেলে ।

এ বিষয়ে কালিয়াকৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনোয়ার হোসেন চৌধুরী জনান, পৃথক ৩টি ধর্ষণের ঘটনায় ৩টি মামলা হয়েছে এবং ২ জনকে আটক করে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি