মঙ্গলবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:৩৭ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম
রাণীশংকৈল উপজেলা আওয়ামী লীগ কমিটির পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত সাধারচর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী জহিরুল হকের শোডাউন মুন্সীগঞ্জে আট ডাকাত গ্রেফতার ডাকাতি হওয়া মামামাল উদ্ধার বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ফেনী সদর উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত : শুসেন দিনাজপুরে বিসিক এলাকায় পাটজাত পণ্যের গুদামে আগুন বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ পাঠ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্তি সময়ের দাবি-তসলিমা আক্তার মানিকগঞ্জের শিবালয়ে এমপি দুর্জয়ের ৪৭ তম জন্মদিন পালন আগামীকাল নির্বাচন হাতিয়ার ৭ টি ইউনিয়নে কেন্দ্র পৌছেছে মালামাল শরীয়তপুরে জাজিরা মাঝির ফেরিঘাট চালুর দাবিতে গণ-অনশন সোনাগাজী পৌরসভার নির্বাচনে প্রচারণার শেষ দিনে আ.লীগ প্রার্থীর পথ সভা

স্বাধীনতার ৫০ বছর পর নোয়াখালীতে বাঁশ -কাঠের সাঁকো সরিয়ে হচ্ছে ব্রিজ

নোয়াখালী প্রতিনিধি :: স্বাধীন বাংলাদেশের ৫০ বছরে বাঁশ-কাঠের ছিলো বিশ হাজারের বেশি মানুষের চলাচলের একমাত্র ভরসা। সাঁকোটির স্থলে ব্রিজ নির্মাণের দাবি উঠেছে বহুবার। ব্রিজটি নির্মাণের প্রতিশ্রুতি আর আশ্বাস দিয়েছেন অনেক জনপ্রতিনিধি। অবশেষে নোয়াখালী পৌরসভা আইয়ুবপুর-সাহাপুর গ্রামের নোয়াখালী খালের উপর বাঁশ-কাঠের সাঁকো সরিয়ে হচ্ছে ব্রিজ।

আইয়ুবপুরের বাসিন্দা মালেক মিয়া, ওমর ফারুক ও জামাল উদ্দিন বলেন, নোয়াখালী পৌরসভায় নানান উন্নয়ন হলেও দীর্ঘ ৫০ বছর ধরে পাঁচ ও ছয় নম্বর ওয়ার্ডের প্রায় বিশ হাজার মানুষের দুর্ভোগ ছিল চরমে। পাথরঘাটা খালের উপর একটি পাকা ব্রিজ না থাকায় জীবনের ঝুঁকি নিয়ে কাঠ-বাঁশের সাঁকো দিয়েই চলাচল করতে হয়েছে বছরের পর বছর। এই ব্রিজ নির্মানের জন্য বহুবার সরকারের বিভিন্ন দপ্তরে তদবির করতে হয়েছে। এর আগে নানা সময় ব্রিজটি নির্মাণের প্রতিশ্রুতি আর আশ্বাস দিয়েছেন অনেক জনপ্রতিনিধি। কিন্তু ব্রিজটি নির্মাণ হয়নি! সর্বশেষ স্থানীয় কাউন্সিলর জাহিদুর রহমান শামীমের আন্তরিক প্রচেষ্টায় ব্রিজটি নির্মাণের উদ্যোগ নেয় নোয়াখালী পৌরসভা।

অবশেষে সেই পাথরঘাটা ব্রিজ নির্মাণ কাজের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন হলো। গত সোমবার দুপুরে নোয়াখালী পৌর মেয়র শহিদ উল্যাহ খান পৌরসভার ছয় নম্বর ওয়ার্ডে ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের মধ্য দিয়ে পাথরঘাটা ব্রিজ নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেন।

ব্র্রিজটির কাজ হলে অর্ধশত বছরের দুর্ভোগ নিরসন হবে। এলাকাবাসী জানান, স্বাধীনতার পর থেকে পৌরসভার ছয় নম্বর ও পাঁচ নম্বর ওয়ার্ডের অন্তত বিশ হাজার মানুষ দুর্ভোগ পোহাচ্ছে। কখনও কাউন্সিলরের উদ্যোগে আবার কখনো স্থানীয়দের উদ্যোগে খালের উপর সাঁকো হলেও ব্রিজ নির্মাণ করা হয়নি কখনোই। স্বাধীনতার অর্ধশত বছর পরে হলেও ব্রিজ নির্মাণ কাজ শুরু হওয়ায় আনন্দিত তারা।

উদ্বোধনের আগে স্থানীয়দের উদ্যোগে এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন পৌর মেয়র শহিদ উল্যাহ খান সোহেল। এবিষয়ে ওয়ার্ড কাউন্সিলর জাহিদুর রহমান শামীম বলেন, পাঁচ বছর আগে আমি যখন ভোট চাইতে যাই তখন সকলের একটাই দাবি ছিল পাকা ব্রিজের। আমি তখন ওয়াদা করেছিলাম, নির্বাচিত হলে এটি করে দিব। দীর্ঘদিন পরে হলেও এ ব্রিজের নির্মাণ কাজের উদ্বোধন হওয়াতে আমার দেয়া ওয়াদা পালন করতে পারছি।

নোয়াখালী পৌরসভার মেয়র শহীদ উল্যাহ খান বলেন, গত পাঁচ বছরে নাগরিকদের সেবা নিশ্চিত করতে আমি গুরুত্বপূর্ণ উন্নয়ন কাজ করেছি। এখন আমার প্রতিশ্রুতির আওতায় তেমন কোন কাজ বাকি নেই। বহুবছর আটকে থাকা পাথরঘাটা ব্রিজেরও নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করা হলো।

পৌরসভা সূত্রে জানা গেছে, ৪২ মিটার দীর্ঘ এ ব্রিজের নির্মাণ ব্যয় ধরা হয়েছে তিন কোটি ১৭ লাখ টাকা। আগামী এক বছরের মধ্যে ব্রিজের নির্মাণ কাজ শেষ হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি