বুধবার, ২৯ Jun ২০২২, ১২:৪৭ অপরাহ্ন

নারীকে পেট্রোল দিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে তালাক প্রাপ্ত স্বামীর বিরুদ্ধে

মো: মিজানুর রহমান পটুয়াখালী প্রতিনিধি :: পটুয়াখালীর দুমকিতে মোসাঃ ইতি নামের এক নারীকে পেট্রোল দিয়ে আগুনে পুড়িয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে সদ্য তালাক প্রাপ্ত স্বামীর বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে উপজেলার পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়নের উত্তর পাঙ্গাশিয়া গ্রামের হাজীর হাট এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

অভিযুক্তের নাম মোঃ আঃ জলিল। তিনি ঢাকায় একটি গার্মেন্টসে চাকরি করেন। সে কুষ্টিয়া জেলার মিরপুর উপজেলার বারুইপাড়া ইউনিয়নের মোঃ নুর আলীর ছেলে।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, গত ৭ বছর পূর্বে একই গার্মেন্টসে চাকরির সুবাদে ইতি ও জলিল এর মাঝে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। একপর্যায়ে নিকট আত্মীয়দের মধ্যস্থতায় বিয়ে হয়। তাদের ঘরে আজমাইন (৫) নামে একটি ছেলে সন্তান আছে। দীর্ঘ দিন স্ত্রী-পুত্রের কোন খবর না নিয়েও উল্টো যৌতুকের দাবি করে বসে। এমতাবস্থায় ইতি বাধ্য হয়ে জলিলকে গত ১৩ মে তালাক দেয়। উক্ত তালাকের জের ধরে ইতিকে মোবাইলে পুড়িয়ে মারার হুমকি ধামকি দিয়ে আসে।

আরও জানা যায়, অভিযুক্ত জলিল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে বসত ঘরের পেছনের ভাঙ্গা দরজা দিয়ে উঠে ঘরের সামনের বারান্দায় শুয়ে থাকা সাবেক স্ত্রী ইতির ওপরে পেট্রোল ঢেলে দিয়ে আগুন ধরিয়ে দ্রুত পালিয়ে যায়। বাবা মা টের পেলে চিৎকারে পাশের লোকজন ছুটে আসে। তাদের সহায়তায় দগ্ধ ইতিকে প্রথমে পটুয়াখালী সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে অবস্থার অবনতি দেখে বরিশালে নিয়ে যাওয়া হয়। উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল থেকে ঢাকার উদ্দেশ্য রওয়ানা হলে ভোর সাড়ে ৬ টায় পথে মৃত্যু হয়। ইতির বাবা মন্নান খানের দাবি, তার মেয়েকে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে এবং ঘরের পেছনের দরজা দিয়ে পালিয়েছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি