বুধবার, ১৯ Jun ২০২৪, ০৮:২৬ অপরাহ্ন

শিরোনাম
মানিকগঞ্জের দৌলতপুরে বঙ্গবন্ধু বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট অনুষ্ঠিত শিক্ষার্থী নির্যাতন প্রতিরোধে মাদরাসা প্রধানদের সাথে পুলিশের মতবিনিময় সভা মালয়েশিয়ায় ১২৩ বাংলাদেশীসহ ২১৪ অবৈধ অভিবাসী গ্রেপ্তার বেনজিরের আরও সম্পত্তি ক্রোকের নির্দেশ মডেল মির্জা মাহির প্রথম মিউজিক ভিডিও “কিশোরী রোদ” জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল এর সাংগঠনিক সম্পাদক আমান ডেঙ্গু জ্বর আক্রান্ত শিবালয়ে ভূমি সেবা সপ্তাহ শুরু উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা রাজশাহী নগরীতে পুলিশের অভিযানে গ্রেপ্তার ২৫ চৌদ্দগ্রামে ভূমি সেবা সপ্তাহ’র ২০২৪ উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত আওয়ামী লীগের জাতীয় সম্মেলন কবে, জানালেন ওবায়দুল কাদের

বেলুন ফুলানোর গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নিহত ১

নিউজ ডেস্ক :: শরীয়তপুর সদর উপজেলায় বেলুন ফুলানোর গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণে একজন নিহত হয়েছেন। এতে আহত হয়েছে আরও দুই শিশু। আহত শিশুদের শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। গতকাল শুক্রবার বিকেল পাঁচটার দিকে উপজেলার ডোমসার ইউনিয়নের ডোমসার জগৎচন্দ্র ইনস্টিটিউসন স্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে এ দুর্ঘটনা ঘটে। নিহত সায়েদ ব্যাপারী (৩০) উপজেলার তুলাসার ইউনিয়নের দড়িওয়ালা গ্রামের বাসিন্দা। তিনি দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন এলাকায় বেলুন বিক্রি করে আসছেন।

আহতরা হলো-বেলুন বিক্রেতার ছেলে জাহিদ হাসান (১১)। সে ৪৪ নম্বর চিতলিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রথম শ্রেণির ছাত্র। অপর আহত হলো ডোমসার ইউনিয়নের ডোমসার গ্রামের দেলোয়ার মাদবরের ছেলে সিয়াম মাদবর (৫)।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ডোমসার জগৎচন্দ্র ইনস্টিটিউসন স্কুল অ্যান্ড কলেজ মাঠে ডোমসার শেখ রাসেল ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা চলছিল। সেই মাঠের দক্ষিণ-পূর্ব কর্নারে বেলুন বিক্রি করছিলেন সায়েদ ব্যাপারী।

একপর্যায়ে তার বেলুন ফুলানো গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণ ঘটে। এতে ঘটনাস্থলেই মাথার খুলি উড়ে মারা যান সায়েদ। গুরুতর আহত অবস্থায় শিশু জাহিদ ও সিয়ামকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

শরীয়তপুর সদরের পালং মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আসলাম উদ্দিন আরটিভি নিউজকে বলেন, খবর পেয়ে পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়েছে। মরদেহ এখনও ঘটনাস্থলে রয়েছে। আহত দুই শিশুকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেয়া হয়েছে।বিষয়টি নিয়ে তদন্ত চলছে।


© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগিতায়: