মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ০২:০০ অপরাহ্ন

শিরোনাম
চাটখিলে ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকনকে অব্যাহতি দেয়ায় আনন্দ মিছিল  চৌদ্দগ্রামে বিদ্যুৎ স্পৃষ্টে গৃহবধূর মৃত্যু ট্রেনে পায়ের আঙুল কাটা পড়েছে অধ্যাপক আনু মুহাম্মদের ঈদে ১৪ টি মিউজিক ভিডিও মুক্তি পেয়েছে প্রিন্স খানের চাটখিলে পৈত্রিক সম্পত্তি জবরদখলে ষড়যন্ত্রের অভিযোগ তপ্তদেহ শীতল করতো গাছের নিচে বসেই, গাছ না থাকায় এত গরম সরকার হজযাত্রীদের সর্বোত্তম সেবা দিতে বদ্ধপরিকর-ধর্মমন্ত্রী দেশের স্বার্থ বিরোধী কাজের সাথে যারাই জড়িত, তারাই মুক্তিযুদ্ধের চেতনা বিরোধী – আনু মুহাম্মদ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে  প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বাস্তবায়ন করতে হবে- সুবর্ণচর উপজেলা আ.লীগ হাতিয়ার উন্নয়নে সরকারের স্মার্ট বাংলাদেশ কর্মসূচিকে কাজে লাগানো হবে – মোহাম্মদ আলী এমপি

সেঞ্চুরিয়নে চালকের আসনে শ্রীলঙ্কা

নিউজ ডেস্ক :: সেঞ্চুরিয়নে স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে প্রথম টেস্টের প্রথম দিনে চালকের আসনে বসেছে সফরকারী শ্রীলঙ্কা। শনিবার শুরু হওয়া এই টেস্টে চান্দিমাল, ধনাঞ্জয়া ও ডিকওয়েলার ব্যাটিং নৈপুণ্যে ৬ উইকেটে ৩৪০ রান নিয়ে প্রথম দিন শেষ করে লঙ্কা।

যদিও এতে স্বস্তিতে নেই শ্রীলঙ্কা। কেননা ফিফটি পেলেও চোট পেয়েই মাঠ ছাড়তে হয়েছে ধনঞ্জয়া ডি সিলভাকে। যাতে ম্যাচের বাকি অংশে এই ব্যাটসম্যানকে পাওয়া নিয়ে আছে সংশয়। তবে মাঠ ছাড়ার আগে ১০৬টি বল মোকাবেলা করে ১১টি চার ও একটি ছক্কার সাহায্যে ৭৯ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেন তিনি।

একইসঙ্গে দলীয় ৫৪ রানেই যখন তিনটি উইকেট পড়ে যায়, সেই কঠিন মুহূর্তে ব্যাট হাতে নেমে চতুর্থ উইকেটে চান্দিমালের সাথে ১৩১ রানের মূল্যবান জুটি গড়ে দলকে করেন বিপর্যয়মুক্ত। রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে ধনঞ্জয়া ফিরে গেলেও নিরোশান ডিকওয়েলাকে নিয়ে আরও একটি ভালো জুটি গড়েন দিনেশ চান্দিমাল।

যদিও এই জুটিতেও ছিল অনেক না পাওয়ার খেদ। মাত্র এক রানের জন্য যেমন হয়নি শতরানের জুটি, তেমনি ১৫ রানের আক্ষেপ নিয়েই মাঠ ছাড়তে হয়েছে চান্দিমালকে। অন্যদিকে এর কিছুক্ষণ পর মাত্র ১ রানের জন্যই নিজের ষোড়শ ফিফটি বঞ্চিত হন নিরোশান। অর্থাৎ ফেরার আগে ১৬১ বল মোকাবেলায় ১১টি চারের মারে ৮৫ রান করেন দ্বাদশ শতক বঞ্চিত চান্দিমাল। আর ৮৬ বল খেলে ছয়টি চারের সাহায্যে ৪৯ রান আসে ডিকওয়েলার ব্যাট থেকে। এরপর দিনের খেলা শেষ হবার ৮ ওভার আগে ষষ্ঠ উইকেট হিসেবে মাঠ ছাড়েন ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গা (১৮)।

এর আগে সকালে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ৫৪ রানের মধ্যেই ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে সফরকারীরা। এসময় প্রোটিয়া পেসারদের তোপের মুখে একে একে সাজঘরে ফেরেন দিমুথ করুণা রত্নে (২২), কুশল মেন্ডিস (১২) এবং কুসল পেরেরা (১৬)। এরপরই দলের হাল ধরেন দীনেশ চান্দিমাল ও ধনঞ্জয়া ডি সিলভা। দুজনের দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে দলীয় রান পৌঁছায় ১৮৫-তে।

তবে পায়ের পেশিতে টান লাগলে এম্বুলেন্সে বসে মাঠ ছাড়তে হয় ধনঞ্জয়াকে। শেষপর্যন্ত আর মাঠে নামা হয়নি। দিনের খেলা তো বটেই, ধনঞ্জয়ার হয়ত এই ইনিংস বা এই ম্যাচ কিংবা এই সিরিজেও আর মাঠে নামা নাও হতে পারে।

২৯ বছর বয়সী এই অলরাউন্ডারকে এখন অপেক্ষা করতে হচ্ছে মেডিকেল পরীক্ষার রিপোর্টের জন্য। রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে মাঠ ছাড়া ক্রিকেটার মেডিকেল টিমের সহায়তায় ড্রেসিংরুমে ফেরার পর প্রাথমিক চিকিৎসা নেন। প্রাথমিকভাবে মনে হয়েছে, সফট টিস্যু ইঞ্জুরির শিকার তিনি। এমআরআই পরীক্ষার ফলাফল পেলে বোঝা যাবে চোটের অবস্থা।

লঙ্কান ক্রিকেটার চান্দিমাল জানান, ‘চোট পাওয়ার পরপরই ধনঞ্জয়া আমাকে জানায় পেশিতে টান লেগেছে। সে ভাবছে, আগামী দুই বা তিন সপ্তাহ খেলতে পারবে না। দেখা যাক এমআরআই রেজাল্ট কী আসে। আশা করি দ্রুতই সেরে উঠবে। আজ দারুণভাবে ব্যাট করছিল।’

ধনঞ্জয়া খেলতে না পারলে কনকাশন সাবস্টিটিউট পদ্ধতির মাধ্যমে অন্য কোনও খেলোয়াড়কে অবশ্য একাদশে নিতে পারবে শ্রীলঙ্কা।

এদিকে, প্রথম দিনে লঙ্কান ইনিংসের ছয়টি উইকেট তুলে নিতে পারলেও আজ রোববার দ্বিতীয় দিনে ঘুরে দাঁড়াতে চায় স্বাগতিকরা। প্রথমদিনে দক্ষিণ আফ্রিকার পিছিয়ে পড়ার জন্য অবশ্য তাদের অনভিজ্ঞ বোলিং আক্রমণকেই দায়ী করা যায়। বেশিরভাগ সময়েই তারা তাদের সঠিক লাইন ও লেন্থ বজায় রাখতে ব্যর্থ হয়।

যাতে সব বোলারই ওভার প্রতি তিন রানেরও বেশি দিয়ে গেছেন। এমনকি দুই একজন মাঝে মাঝে ১৫০ কিলোমিটার ঘণ্টাবেগে বল করলেও তা কাঁপন ধরাতে পারেনি সফরকারীদের বুকে। যদিও এদের মাঝে উইয়ান মুলডারই ছিলেন সবচেয়ে সফল বোলার, যিনি একাই নিয়েছেন তিনটি উইকেট। বাকি তিনটি নিজেদের মাঝে ভাগ করে নিয়েছেন লুঙ্গি এনগিদি, লুথো সিপামলা ও অ্যানরিখ নর্তজে।

এনএস/


© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগিতায়: