রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৪৪ অপরাহ্ন

শিরোনাম
ভেলাগুড়ী ইউপি নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশা সাবেক ছাত্রলীগ নেতার সাংবাদিককে মারতে গিয়ে জেল খাটেন শাহরুখ খান প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে ক্যাম্পেইন করে দেওয়া হবে ৮০ লাখ টিকা ফাইজারের আরও ২৫ লাখ টিকা আসছে কাল মহিলা আওয়ামী লীগের উদ্যেগে প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন পালিত নোবিপ্রবিতে বিশ্ব ফার্মাসিস্ট দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত ২৮ সেপ্টেম্বর থেকে বিমানবন্দরে পুরোদমে করোনা পরীক্ষা শুরুর আশা মুনিয়া হত্যা মামলা: হাইকোর্টে আগাম জামিন রিপনের দিনাজপুরে পরচুলা ক্যাপ তৈরীতে সাবলম্বি অসচ্ছল পরিবার, সহস্রাধিক পরিবারের কর্মসংস্থান প্রথম ঘণ্টায় সাড়ে পাঁচশ কোটি টাকার বেশি লেনদেন

প্রথম জয় তামিমের ব্যাটে বরিশালের

নিউজ ডেস্ক :: বঙ্গবন্ধু টি-টোয়েন্টি কাপে প্রথম জয় পেল বরিশাল। বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের পর অধিনায়ক তামিম ইকবালের অনবদ্য ফিফটিতে রাজশাহীকে হারিয়েছে ফরচুন বরিশাল। ফলে এই প্রথম হারের স্বাদ পেল রাজশাহী।

মিরপুর শের-ই-বাংলায় শনিবার আগে ব্যাট করে রাজশাহী ৯ উইকেটে ১৩২ রান সংগ্রহ করে। জবাবে এক ওভার হাতে রেখে জয়ের বন্দরে নোঙর ফেলে বরিশাল। তবে শেষদিকে কিছুটা উত্তেজনা ছড়ায় ম্যাচ। দুই ওভারে দুই ছক্কা হাঁকিয়ে অধিনায়ক তামিম সে উত্তেজনা থামিয়ে দিলেন।

রান তাড়া করতে নেমে শুরুটা অবশ্য ভাল হয়নি বরিশালের। ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারে মেহেদি হাসান মিরাজ ফিরে যান ৫ বলে ১ রান করে। এরপর তামিমের সঙ্গে জুটি বাঁধেন পারভেজ ইমন। দুজন মিলে ৪৫ বলে তুলেন ৬১ রান। ইনিংসের নবম ওভারে ফিরে যান পারভেজ ইমন। তার আগে ৩ চার ও ১ ছয়ে ১৭ বলে ২৩ রান করে যান।

তৌহিদ হৃদয়ের ব্যাট থেকে ২৪ বলে আসে ১৭ রান। তৌহিদ আউট হওয়ার পর খানিক চাপে পড়ে বরিশাল। রানের খাতা খোলার আগেই ফিরে যান আফিফ, ইরফান শুক্কুর রানআউট হন ১ রান করে।

সতীর্থদের আসা-যাওয়ার মিছিলে তামিম ছিলেন টিকে। তবে দৃঢ় মনোবলে দলকে জিতিয়ে মাঠ ছাড়েন বাঁহাতি ওপেনার তামিম ইকবাল। ৬১ বলে খেলেন ৭৭ রানের ইনিংস। ১০ চার ও ২ ছক্কায় সাজান নিজের ম্যাচজয়ী ইনিংসটি।

এর আগে টস হেরে ব্যাটিং করতে নেমে ভালো শুরুর পর হঠাৎ ছন্দপতন ঘটে রাজশাহী শিবিরে। নাজমুল হোসেন শান্ত ২৪ রানে আবু জায়েদ রাহীর বলে তামিমের হাতে ক্যাচ দেন। এরপর রনি তালুকদার (৬) মিরাজের ঘূর্ণিতে পরাস্ত হয়ে বোল্ড হন।

সতীর্থ ইমনের ডাকে সাড়া দিতে গিয়ে আশরাফুল রান আউট হন ৬ রানে। ভালো করতে পারেননি কাজী নুরুল হাসান সোহানও (০)। দল ৩৯ থেকে ৬৩ রানে যেতেই ৫ ব্যাটসম্যান হারায় রাজশাহী।

সেখান থেকে দলের হাল ধরেন ফজলে মাহমুদ ও মেহেদী হাসান। প্রতি আক্রমণে দুই ব্যাটসম্যান দলের রান বাড়ান দ্রুত গতিতে। তাদের ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে আসে ৬৫ রান। মেহেদী হাসান ২৩ বলে ৩ ছক্কায় করেন ৩৪ রান। ফজলে মাহমুদ ৩২ বলে ৩ বাউন্ডারিতে করেন ৩১ রান। শেষ দিকে আর কেউ দলের রান বাড়াতে পারেননি।

বরিশালের হয়ে কামরুল ইসলাম রাব্বী ৪ ওভারে ২১ রানে নেন ৪ উইকেট। মিরাজ পেয়েছেন ২টি। দুই পেসার তাসকিন ও রাহীর পকেটে গেছে ১টি করে উইকেট।

এএইচ/

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি