শুক্রবার, ১৮ Jun ২০২১, ০৯:২৪ পূর্বাহ্ন

দীর্ঘ সাড়ে ছয় মাস পর চালু হচ্ছে বরিশালের সিনেমা হল

বরিশাল প্রতিনিধি :: দীর্ঘ সাড়ে ছয় মাস পর বরিশালের চলচিত্র বিনোধনের একমাত্র প্রেক্ষাগৃহ অভিরুচি সিনেমা হল বাংলার সুপার স্টার হিরো শাকিব খানের শাহেন শাহ ছবির প্রদর্শণের মাধ্যমে প্রেক্ষাগৃহ হলটি সরকারী নির্দেশনা খুলে দেওয়া হবে।

বৈশ্বিক কোভিড-১৯ করোনা কালীন সময় দেশব্যাপি সকল চলচিত্র প্রদর্শনের সিনেমা হল চলার মাধ্যমে সাধারন জনগণের স্বাস্থ্য ঝুকি বৃদ্ধি পাওয়ার আশংকায় সরকারের নির্দেশে তথ্য মন্ত্রালয় সিনেমা হলের চলচিত্র পদর্শণ বন্ধ করে দেয়।

শুক্রবার নতুন করে সিনেমা হল চালু হওয়ার ঘোষনায় আজ বৃহস্পতিবার বন্ধ থাকা অভিরুচি সিনেমা হলের ভিতরের দর্শকদের বসার চেয়ারগুলো পরিস্কার-পরিচ্ছনতা করা সহ হলের বিভিন্নস্থানে জীবানুনাশক স্প্রে দিয়ে করোনা থেকে ঝুকি মুক্ত করেন।

বৃহস্পতিবার দুপুরে দেখা যায় অভিরুচি সিনেমা হলের সু-মধূর কন্ঠের প্রচারক মাসুম শাকিব খানের শানে শাহ চলচিত্রের পোস্টার আটা দিয়ে সাটানোর কাজ করছে।

অন্য সকল স্টাপরা হলের মেসিন রুম থেকে শুরু করে হলের দর্শকদের বসার সিটগুলো নতুন দেখে শুনে ঝালিয়ে নিচ্ছেন।

এব্যাপারে অভিরুচি প্রেক্ষাগ্রহের পরিচালক সৈয়দ রেজাউল কবীর বলেন, বর্তমান করোনার মধ্যেও সরকার বন্ধ থাকা সিনেমা হলগুলো খুলে দেয়ার কারনে প্রেক্ষাগৃহের মালিক পক্ষ আর্থিক ক্ষতির সম্মুখিনতো হয়েছে।

অন্যদিকে গত সাড়ে ছয় মাস হলগুলো বন্ধ থাকার কারনে হলের সাধারন কর্মচারীরা আর্থিক অনটনের মধ্যে মানবতার জীবন যাপন করেছে।

সিনেমা হলের কোন কর্মচারী সরকারীভাবে কারো কাছ থেকে কোন ধরনের সাহায্য সহযোগীতা পায়নি। এছাড়া আমরা শুক্রবার সিনেমা হলে দর্শকদের প্রবেশকালীন সময় আমাদের নিজস্ব অর্থায়নে মাক্স বিহীন দর্শকদের মাক্স দিয়ে প্রবেশ করার সিদ্ধান্ত গ্রহন করেছি।

একই সময় করোনা ঝুকি এড়াতে জিবানুনাশক ¯েপ্র ছিটানো সহ সকল ধরনের পরিচ্ছন্নতার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

রেজাউল কবীর আরো বলেন বর্তমানে চলচিত্রের সকল ধরনের কার্যক্রম বন্ধ থাকার কারনে নতুন কোন ছবি নির্মান না হওয়ায় পুরানো ছবি দিয়ে হল চালু করা হচ্ছে।

এখানে পুরান ছবিতে বড়ধরনের দর্শকদের চাপ পড়বে বলে মনে হয় না। এরপরে ছবি পদর্শণকালে বিদ্যুৎ খরচ,স্টাপ খরচের টাকা উঠে আসার চেয়ে লোকসানের সংক্ষাটাই বেশি থাকবে আশংকা করা হচ্ছে।

অভিরুচি সিনেমা হলে উপরে ডিসি আসন সংক্ষা রয়েছে ৩শত ২৫টি। সৌখিন ও সুধি আসন মিলিয়ে রয়েছে ৬শত আসন।

এখানে কবীর আরো বলেন, যেহেতু এতদিন সিনেমা হলগুলো বন্ধ ছিল হয়ত চালু হওযার কারনে কিছু কিছু ঘড় বন্ধি মানুষ একটু বিনোধনের জন্য হলে এসে বড় পর্দায় ছবি চাইবে।

নিউজটি শেয়ার করুন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত © ২০২০ বাঙলার জাগরণ
কারিগরি সহযোগীতায় :বাংলা থিমস| ক্রিয়েটিভ জোন আইটি